Sunday, 15/12/2019 | : : UTC+6
Green News BD

বিভীষিকাময় বছর হয়ে আছে ৫৩৬ খ্রিস্টাব্দ

বিভীষিকাময় বছর হয়ে আছে ৫৩৬ খ্রিস্টাব্দ

এখনো  পৃথিবীতে কোন না কোন অঞ্চলে প্রতি বছরই ঝড়, জলোচ্ছ্বাস, ভূমিকম্পের মতো প্রাকৃতিক দুর্যোগের ঘটনা ঘটে। তবে ইতিহাসের পাতায় এখন পর্যন্ত পৃথিবীবাসীর জন্য বিভীষিকাময় বছর হয়ে আছে ৫৩৬ খ্রিস্টাব্দ! এই সময়কালে খুবই রহস্যময় এক কুয়াশা সমগ্র পৃথিবীর অনেক অংশকে অন্ধকারে ঢেকে দিয়েছিল, দিন-রাত আলাদা করার কোনো উপায় ছিল না। আর এই অবস্থা ছিল টানা দেড় বছর ধরে। দীর্ঘ ঐ সময় সূর্যের আলো পৌঁছাতে পারেনি পৃথিবীতে।

বিজ্ঞান বিষয়ক আন্তর্জাতিক সাময়িকী সায়েন্সে বিষয়টি ব্যাখ্যা করেছেন  হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যযুগ বিষয়ক ইতিহাসবিদ এবং প্রত্নতত্ত্ববিদ মাইকেল ম্যাকরমিক, “পৃথিবী সৃষ্টি হওয়ার পর থেকে মানুষের বেঁচে থাকার জন্য ভয়াবহ যতো সময় গেছে তার মধ্যে ৫৩৬ খ্রিস্টাব্দের সময়টা ছিল সবচেয়ে খারাপ। ৫৩৬ খ্রিস্টাব্দের গ্রীষ্মকালে তাপমাত্রা কমতে কমতে নেমে গিয়েছিল দেড় থেকে দুই ডিগ্রি সেলসিয়াসে। ওই দশকটাই ছিল ইতিহাসের সবচেয়ে বেশি ঠান্ডার। গ্রীষ্মকালেও তুষারপাত হয়েছিল চীনে। মারাত্মক তুষারপাতের কারণে শস্যহানির ঘটনা ঘটেছিল। ফলে লাখো লাখো মানুষ খাদ্য সঙ্কটে পড়ে। আইরিশ ক্রনিকলের রেকর্ডেও এসব তথ্য আছে। সেখানে উল্লেখ আছে, ৫৩৬ থেকে ৫৩৯ খ্রিস্টাব্দ পর্যন্ত রুটির মারাত্মক অভাব দেখা দিয়েছিল। তারপর ৫৪১ খ্রিস্টাব্দে দ্রুত সংক্রামক ব্যাধি প্লেগ আক্রমণ করে মিশরের পেলসিয়াম বন্দরে। তখন প্লেগ এতো দ্রুত ছড়িয়ে পড়েছিল যে পূর্ব রোমান সাম্রাজ্যের এক তৃতীয়াংশ থেকে অর্ধেক জনগোষ্ঠী বিনাশ হয়ে গিয়েছিল। রোমান সাম্রাজ্যেরও পতন তরান্বিত করেছিল।”

ইতিহাসবিদরা বহুকাল আগে থেকেই জানতেন যে ষষ্ঠ শতাব্দীর মাঝামাঝি সময়ে প্রচণ্ড এক অন্ধকার নেমে এসেছিল পৃথিবীতে। একে বলা হয় অন্ধকার যুগ। সুইস হিমশৈল থেকে কিছু বরফ নিয়ে এই গবেষণাটি চালিয়েছেন। তারা বলছেন, ৫৩৬ খ্রিস্টাব্দের সময়কার বরফের দুটো অণুবীক্ষণিক কণা পাওয়া গেছে যা আসলে আগ্নেয়গিরি অগ্ন্যুত্পাত থেকে সৃষ্ট ছাই। বিজ্ঞানীরা বিশ্বাস করেন, সেই ছাই বাতাসের মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছিল সমগ্র ইউরোপ আর শেষ দিকে এশিয়ায়। এর কারণেই তীব্র ঠান্ডা পড়েছিল ঐ সব অঞ্চলে। যদিও এরপর আরো দুটি বড় অগ্ন্যুত্পাতের ঘটনা ঘটেছিল ৫৪০ এবং ৫৪৭ খ্রিস্টাব্দে।

তথ্যসূত্র -বিবিসি

Sharing is caring!

Advisory Editor
Kazi Sanowar Ahmed Lavlu
Editor
Nurul Afsar Mazumder Swapan
Sub-Editor
Barnadet Adhikary 
Dhaka office
38 / D / 3, 1st Floor, dillu Road, Magbazar.
Chittagong Office
Flat: 4 D , 5th Floor, Tower Karnafuly, kazir deori.
Phone: 01713311758

পুরানো খবর

ডিসেম্বর 2019
শনি রবি সোম বুধ বৃহ. শু.
« নভে.    
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
28293031  

ছবি ঘর